ছড়ার মেলা // রণেশ রায়

ছড়ার মেলা  //   রণেশ রায়
মায়ের কোল


কথায় কথায় ছড়া কাটি, 
অজান দেশে চলি 
গুটি গুটি হাঁটি
 ছড়ায় ছড়ায়  বলি। 
ছড়া আমাদের হাসায়
শোন হাসির ঢল,
ছড়াই আবার কাঁদায়     
বয় কান্নার রোল,  
ছড়া আমাদের মাসি-পিসি    
ছড়া মায়ের কোল। 


            
               


মজলিস


খেঁকশেয়ালি দাঁড় বায়
বাঁদর বসে তবলা বাজায়
নদীতে ভাসে ভুটভুটি
ভোঁদর বাজায় ডুগডুগি।
হাতী চলে শুর তুলে
ভালুক নাচে কাঁচা খুলে 
শেয়াল ডাকে হুক্কা হুয়া
বেড়াল খায় চুয়া ।



পালিয়ে চল 


দরজায় ধাক্কা খট্ খট্
মাঘে ঠান্ডা ঠক্ ঠক্
জিভ করে লক্ লক্
গন্ধ নাকে টক্ টক্
দাদু হাটে গট্ গট্
পিঠে লাঠি মট্ মট্
করিস না আর ফট্ ফট্
পালিয়ে চল চট্ পট্।



মামা আমার 


খামখেয়ালি মামা  আমার 
খেয়াল একটু করো 
তা নইলে হোঁচট খাবে 
ব্যথা লাগবে বড় 
মামী আমার কষ্ট পাবে 
সে তো তুমি জানো 
তাই তো বলি তোমায় আমি 
     আমার কথা মানো ।     


মাছ ধরা


পিসে পিসি বনগাঁ বাসি 
পুকুর ধারে  ঘর 
পুকুরে আছে মাছ মেলা 
ছিপ ফেলে ধর I



আমি খাই আম
                  
গাছে ফলে কত ফল 
লিচু আম জাম 
লিচু জাম তোরা খা 
আমি  খাই আম। 


নইলে পাবে


টক ঝাল নোন্তা
মশা মাছি বোলতা
খেতে চাও কোনটা
শোন বাজে ফোনটা
জেনে এসো টোটকা 
খেতে হয় সবটা
বাদ নয় কোনটা
ঠিক রেখো মাথাটা
নইলে পাবে ঘন্টা।


সন্ধ্যে হলে


বিকেল হলে খোকা পালায়
করে টই টই
লেখাপড়া শিকেয় ওঠে
লুটিয়ে কাঁদে বই
সন্ধ্যে হলে পড়তে বসে
খেয়ে দই খই।

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *