The Haunted Chamber // Henry Longfield

The Haunted Chamber // Henry Longfield
Each heart has its haunted chamber,

 Where the silent moonlight falls!

On the floor are mysterious footsteps,

 There are whispers along the walls!
And mine at times is haunted

 By phantoms of the Past

As motionless as shadows

 By the silent moonlight cast.
A form sits by the window,

 That is not seen by day,

For as soon as the dawn approaches

 It vanishes away.
It sits there in the moonlight

 Itself as pale and still,

And points with its airy finger

 Across the window-sill.
Without before the window,

 There stands a gloomy pine,

Whose boughs wave upward and downward

 As wave these thoughts of mine.
And underneath its branches

 Is the grave of a little child,

Who died upon life’s threshold,

 And never wept nor smiled.
What are ye, O pallid phantoms!

 That haunt my troubled brain?

That vanish when day approaches,

 And at night return again?
What are ye, O pallid phantoms!

 But the statues without breath,

That stand on the bridge overarching

 The silent river of death?

.

.

হৃদয় মাঝে আক্রান্ত কক্ষ

রণেশ রায়

.

খুলে দেখ তোমার আক্রান্ত বক্ষ

প্রতিটি হৃদয় মাঝে থাকে এক কক্ষ,

সেখানে নীরব চাঁদের আলো ঝরে

রহস্যময় পদচিহ্ন দেখা যায় ঘরে,

দেওয়ালে কান পাত, শোন,

কারা যেন ফিসফিস করে

মৃত্যুর কারবারি  কোন।

.

আমার হৃদয়ও আক্রান্ত তখন,

অতীতের অশরীরি হানা দেয়

নিশ্চল মায়াবী ছায়ার নাচন,

কখনও চন্দ্রালোকের আগমন

উৎফুল্ল হয়ে ওঠে  হৃদয় তখন।

.

কোন সে অশরীরি আকার

জানালায় এসে বসে

দিনে দেখা পাওয়া যায়  না তার

দিনান্তে যখনই অন্ধকার ঘনায়

দেখি না তাকে আর,

সে নেয় বিদায়।

.

চাঁদের আলোয় মায়াবী সে

বিবর্ণ নিশ্চুপ এসে বসে,

জানলার দিকে দেখে

বায়বীয় আঙুলের নির্দেশে।

.

জানালার বাইরে এসে দাঁড়ায়

এক বিবর্ণ পাইন দোলা খায়

তার শাখা দুলে চলে অঙ্গে অঙ্গে

মাথা ওঠে নামে নীচে ওপরে

আমার চিন্তাও নড়ে চলে তরঙ্গে তরঙ্গে।

.

পাইনের শাখার নীচে কে সে?

কবরে শয়ান এক শিশু,

জীবনের শুভ্র সকালে চলে যায় যে

আর কখনই কাঁদে নি বা হাসে নি সে।

.

তোমরা কে? অশরীরি ছায়া সব

আমার মস্তিষ্কে তোমাদের গোলরব,

দিনে আসতেই আলো, পালাও শেষ আঁধারে

ফিরে আস আবার রাতের অন্ধকারে ।

অশরীরি ছায়ারা

তোমরা নিষ্প্রাণ নীরব মূর্তি

দাঁড়িয়ে থাক সুউচ্চ সেতু পথে

নিস্তরঙ্গ মৃত্যুর নদী, অশুভের প্রহরী।

.

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *